Thursday 4 January

কে - কি ভাবেন ফুটবল রাজকে নিয়ে !

কে - কি ভাবেন ফুটবল রাজকে নিয়ে !

তাকে নিয়েই আলোচনা, সমালোচনা হয় যে সবার মধ্যবিন্দুতে থাকে। আর যখন কথা হয় ফুটবল নিয়ে তখন সবার মধ্যবিন্দুতে তো ফুটবল রাজা মেসি থাকবেনেই। ফুটবল ভান্ডারে এমন কোন শব্দ বাকি নেই আর, যা দিয়ে মেসির প্রশংসা করা বাকি আছে। কথার মাঠে নয় খেলার মাঠেই যে সব কিছু করে বিশ্ব কে দেখিয়েছেন, কেন তিনি আলোচনার কেন্দ্রবিন্দুতে। শুধু তার খেলাই নয় তার আচরণ ও আপানকে অনেক প্রভাবিত করবে তার সম্পর্কে ভালো ধারণা পোষণ করার জন্য। তাই তো অনেক গ্রেট প্লেয়াররা , বিখ্যাত মানুষ রা তাকে নিয়ে করেছেন নানা সময় না উক্তি !
আজ জানাচ্ছি ফুটবল গসিপের মূল আকর্ষণ লিওনেল মেসির উপর বিখ্যাত কিছু মানুষের উক্তি –
 
 ডেভিড লুইজ (ব্রাজিলিয়ান সেন্ট্রাল ডিফেন্ডার ) -
”খেলার মাঠে দক্ষতায় পার্থক্য গড়ে দেয়। আর মেসি অসাধারণ দক্ষ। সে সর্বকালের সেরা খেলোয়াড়”
 ফ্রাঞ্জ বেকেনবাওয়ার (সাবেক বায়ার্ন এবং জার্মান বিশ্বকাপজয়ী খেলোয়াড় ) -
মেসি অত্যন্ত মেধাবী। সে স্বয়ংসম্পূর্ণ। আমি যখন তাকে দেখি তখন এমন একজন খেলোয়াড়কে দেখি যে অত্যন্ত দক্ষ, অত্যন্ত বুদ্ধিমান। মেসির বাম পা’টা ঠিক যেন ডিয়েগো ম্যারাডোনার মতো
 ভিক্টোর ভালদেস (সাবেক বার্সেলোনা গোলকিপার ) -
"আমার কাছে মেসিই সেরা। সে সেরা, আর সবসময় সেরাই থাকবে"
 কোব ব্রায়ান্ট (আমেরিকার জাতীয় দলের বাস্কেটবল খেলোয়াড় ) -
"আমি আমার আমেরিকা জাতীয় দলে ১০ নম্বর জার্সি পরিধান করি আমার দেখা সবচেয়ে সেরা খেলোয়াড় মেসির প্রতি সম্মান দেখিয়ে"
 বুফন (ইতালীর বিশ্বকাপজয়ী গোলকিপার ) -
"মেসির মতো খেলোয়াড়রা এক প্রজন্মে একবারই আসে। এটা প্রায় অসম্ভব যে, মেসি যা করছে তা ভবিষ্যতে কোনো মানুষ পুনরাবৃত্তি করতে পারবে"
 ইব্রাহিমোভিচ (সুইডিশ এবং বর্তমান ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড খেলোয়াড় ) -
“কে সেরা- মেসি না ইব্রাহিমোভিচ? মেসি শেষ কয়েক বছরে যা করে দেখিয়েছে এরপর এ নিয়ে আর কোনো বিতর্ক নেই”
“মেসির ডান পায়ের কোনো দরকার নেই। সে শুধু তার বাম পা’টি ব্যবহার করলেও সে পৃথিবীর সেরা খেলোয়াড়। কল্পনা করুন, সে যদি তার ডান পা’টিও সেভাবে ব্যবহার করত! তাহলে আমরা বিশাল এক সমস্যায় পড়ে যেতাম।”
 ফ্যাব্রিসিও কলোচিনি (আর্জেন্টাইন সেন্টার ব্যাক ) -
”মেসি এখনও পর্যন্ত পৃথিবীর সেরা খেলোয়াড়। তার মতো আর কেউই নেই”
 ওয়েইন রুনি (ইংল্যান্ডের স্ট্রাইকার ) -
”মেসি একটি কৌতুক। আর আমার কাছে সর্বকালের সেরা”
 জন টেরি (সাবেক ইংল্যান্ড এবং চেলসি খেলোয়াড় ) -
“মেসিকে খেলতে দেখা অনেকটা জাদু দেখার মতো। লিওনেল মেসি মোটামুটি পরিষ্কারভাবেই সর্বকালের সেরা খেলোয়াড়। আনন্দদায়ক ব্যাপার হলো, আমি তার বিপক্ষে খেলেছি এবং আমি যখন আমার ক্যারিয়ার শেষ করবো আমি পিছনে ফিরে তাকাবো এবং এটা ভেবে আনন্দ পাবো যে আমি সর্বকালের সেরা খেলোয়াড়ের বিপক্ষে খেলেছি।”
 মাইকেল ওয়েন (সাবেক ইংল্যান্ড, রিয়াল মাদ্রিদ, লিভারপুল এবং ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড প্লেয়ার ) -
“আমি বিশ্বাস করি না মেসির পূর্বের কোনো খেলোয়াড় মেসির মতো ফুটবল খেলতে পারতো”
 ডিয়েগো ম্যারাডোনা ( আর্জেন্টিনার বিশ্বকাপ জয়ী খেলোয়াড় ) -
“আমি সেই খেলোয়াড়কে দেখে ফেলেছি যে আর্জেন্টিনা ফুটবলে আমার আসনটি নেবে এবং সেই খেলোয়াড়ের নাম মেসি। মেসি অসাধারণ এক প্রতিভা।”
 পাওলো মালদিনি ( ইতালি এবং এসিমিলানের সাবেক ডিফেন্ডার ) -
“আমি মনে করি মেসি ম্যারাডোনার স্তরে শুধু পৌঁছায়নি, তাকে অতিক্রম করে চলে গেছে। সে খুব দ্রুতগতিতে অসাধারণ কিছু করতে পারে, যা পাগলামী বাদে আর কিছুই নয়।”
 নেইমার ( ব্রাজিলের ও পিএসজির খেলোয়াড় ) -
“আমি সবসময়ই বলেছি, মেসিই এ পৃথিবীর সেরা খেলোয়াড়”
 ফ্রাঙ্ক রিবেরী (বায়ার্ন মিউনিখ এবং ফ্রান্সের খেলোয়াড় ) -
“মেসি নিজেই একটি ক্লাস। সবার সেরা মেসি, আর বাকিরা তার পরে। সে যেটা করে দেখায় সেটা অসাধারণ। সে আসলেই সম্মানের যোগ্য”
 জাভি হার্নান্দেজ (স্প্যানিশ ফুটবলার ) -
“যদিও মেসি মানুষ না-ও হতে পারে, কিন্তু এটা ভাল যে, মেসি নিজে এখনও নিজেকে মানুষই ভাবে।”
 রিষ্টো স্টোইকোভ (সাবেক বার্সেলোনা তারকা ) -
“একসময় তারা বলতো মাঠে পিস্তল ছাড়া আমাকে আটকানো সম্ভব না। কিন্তু এখন মেসিকে আটকাতে গেলে আপনাকে মাঠে মেশিন গান নিয়ে নামতে হবে।”
 স্যামুয়েল ইতো (ক্যামেরুন জাতীয় দলের খেলোয়াড় ) -
“মেসি ঈশ্বর সমতুল্য। মানুষ হিসেবে তো বটেই, খেলোয়াড় হিসেবে আরো বেশি করে। আমি তাকে ছোট থেকেই চিনি এবং তাকে চোখের সামনে বড় হতে দেখেছি। সে যা অর্জন করেছে তার সবকিছুই তার প্রাপ্য ছিল।”
 লুইস ফিগো (সাবেক পর্তুগাল, রিয়াল মাদ্রিদ এবং বার্সেলোনা তারকা ) -
“আমার কাছে মেসিকে খেলতে দেখা আনন্দদায়ক। এটা অনেকটা যৌনতার চরম আনন্দের শেষ মুহুর্তের মতো। এটা চরম বা অসম্ভব আনন্দদায়ক।”
 ইয়োহান ক্রইয়েফ (ডাচ এবং বার্সা কিংবদন্তী ) -
“পৃথিবীর জন্য মেসি একটি সম্পদ। কারণ সে সারা পৃথিবীর শিশুদের কাছে এক আদর্শ। মেসি ইতিহাসের সবচেয়ে বেশি ব্যালন ডি অর পাওয়া খেলোয়াড় হবে। আর তার সংখ্যা হবে পাঁচ, ছয়, সাত…। তার সাথে কারো তুলনা চলে না। সে অন্য স্তরের খেলোয়াড়।”
 পেপ গার্দিওলা (ম্যানচেস্টার সিটি কোচ ) -
“মেসিকে নিয়ে লিখতে যেও না। তাকে বর্ণনা বা ব্যাখ্যা করারও চেষ্টা করো না। তার খেলা শুধু চেয়ে চেয়ে দেখ।”
 ডিয়েগো সিমিওনে (অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদ কোচ ) -
“আপনি ক্রিস্টিয়ানোর সাথে মেসির কোনোভাবেই তুলনা করতে পারেন না। মেসি একাই রোনালদো, বেল এবং বেঞ্জেমা এ জুটির চেয়ে বেশি ভয়ঙ্কর!”
 

আসলে এগুলো ছিলো মেসিকে নিয়ে কেবল গুটি কয়েক জনের মন্তব্য। আর তার কোটি কোটি ভক্তের মন্তব্য নাহয় বাদি দিলাম। মেসি এসছিলেন ফুটবল বিশ্ব রাজত্ব করতে। আর সেটি সে করে দেখিয়েছে!  আর মোহিত করে ফেলেছে গোটা বিশ্ব কে তার জাদুকরি পায়ের ছোঁয়ায় ! একদিন হয়তো মেসি বুটজোড়া তুলে রাখবেন ঠিকি কিন্তু তার পায়ের যাদু কি করে ভুলে থাকবে তার কোটি কোটি ভক্ত ! মেসি থাকবে চির অমলিন আমাদের মনে। ভালোবাসি মেসি তোমাকে।

সপ্নঘুড়ির সাথে থাকার জন্য আপনাকে আন্তরিক ধন্যবাদ । আমাদের পোস্ট গুলো যদি ভালো লেগে থাকে বা ইনফরমেটিভ হয় তাহলে প্লিজ শেয়ার করুন আপনার বন্ধু দের সাথে । স্বপ্ন দেখুন, স্বপ্ন নিয়েই বাচুন, অন্যের স্বপ্ন কে উৎসাহ দিন ।